2014/10/02 at 2:23 PM
ব্যর্থ যুদ্ধবিরতি আলোচনা: গাজায় ইসরাইলি আগ্রাসন অব্যাহত

ব্যর্থ যুদ্ধবিরতি আলোচনা: গাজায় ইসরাইলি আগ্রাসন অব্যাহত

ইসরাইল ও হামাসের মধ্যে যুদ্ধবিরতির মেয়াদ শেষ হওয়ার পর গাজায় ইসরাইলি আগ্রাসন অব্যাহত রয়েছে। ইসরাইলের জঙ্গি বিমান গাজার একটি বহুতল ভবনে হামলা চালিয়ে মাটির সঙ্গে মিশিয়ে দিয়েছে। গাজায় গতকালের হামলায় বহু ফিলিস্তিনি হতাহত হয়েছে। গত এক মাসের বেশি হামলায় গাজার হাজার হাজার ঘরবাড়ি পুরোপুরি ধ্বংস হয়ে গেছে।

গত মঙ্গলবার যুদ্ধবিরতির মেয়াদ শেষ হওয়ার পর গাজায় ইসরাইলি হামলায় এ পর্যন্ত ৮১জন ফিলিস্তিনি শহীদ হয়েছে। তবে গত ৮ই জুলাই থেকে হামলা শুরু হওয়ার পর এ পর্যন্ত দুই হাজার ১০৩জন ফিলিস্তিনি শহীদ ও ১০ হাজার ৬৬০জন আহত হয়েছে। গাজায় ইসরাইলি নৃশংসতার মাত্রা এত বেশি যে, আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলোও এ ব্যাপার হুঁশিয়ার করে দিয়েছে। এসব সংস্থা তাদের প্রতিবেদনগুলোতে বলেছে গাজা পুনর্গঠনের জন্য কয়েক বছর সময় লাগবে। গাজায় ইসরাইলের অব্যাহত আগ্রাসন থেকে বোঝা যায়, অস্থায়ী যুদ্ধবিরতি ইসরাইলি আগ্রাসন বন্ধে কোনো প্রভাব ফেলেনি।

যুদ্ধবিরতি থাক বা না থাক ইসরাইল তার অপরাধযজ্ঞ অব্যাহত রেখেছে এবং যুদ্ধবিরতিকে ইসরাইল সবসময়ই মানবতা বিরোধী কর্মকাণ্ড অব্যাহত রাখার সুযোগ হিসেবে কাজে লাগায়। অস্থায়ী যুদ্ধবিরতি হলেও ইসরাইলের বাধার কারণে যুদ্ধবিরতি কখনো স্থায়ী হয়নি। বারবার যুদ্ধবিরতি করা হলেও প্রতিবারই ইসরাইল তা লঙ্ঘন করেছে। এ অবস্থায় গাজা সংকটের মূল কারণ যদি চিহ্নিত করা না যায় অস্থায়ী যুদ্ধবিরতি করে সমস্যার কোনো সমাধান হবে না বলে বিশ্লেষকরা মনে করছেন।

বাস্তবতা হচ্ছে, সহিংসতা কমিয়ে আনার ব্যাপারে ইসরাইলের অসহযোগিতার কারণে কয়েক দফা যুদ্ধবিরতি হলেও তা কোনো কাজে আসেনি। ইসরাইলের আচরণ থেকে তাদের যুদ্ধংদেহী মনোভাবের বিষয়টি আগের চেয়ে আরো বেশি ফুটে উঠেছে। উল্লেখ করা যায়, ইহুদিবাদী ইসরাইল গাজায় চলমান যুদ্ধে ফিলিস্তিনের প্রতিরোধ যোদ্ধাদের কাছে চরম ব্যর্থতার পরিচয় দিয়েছে। নিজেদের ব্যর্থতা ঢাকার জন্য এবং আরো বেশি প্রতিশোধ নেয়ার জন্য ইহুদিবাদী ইসরাইল সর্বাত্মক চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। এ লক্ষ্যে ইসরাইল নিজেদের অনুকূলে যুদ্ধবিরতি চাপিয়ে দিয়ে যুদ্ধে নিজেদেরকে বিজয়ী দেখানোর চেষ্টা করছে।

প্রকৃতপক্ষে, আমেরিকা ও ইসরাইল সামরিক ও রাজনৈতিক চাপ সৃষ্টির মাধ্যমে এমন এক যুদ্ধবিরতির চেষ্টা করছে যাতে এর ফলাফল তাদের পক্ষে যায়। এ অবস্থায় ফিলিস্তিনিরা জানিয়েছে, গাজার ওপর থেকে নিষেধাজ্ঞা তুলে নেয়াসহ ফিলিস্তিনিদের অন্যান্য দাবি মেনে নেয়ার শর্তেই তারা স্থায়ী যুদ্ধবিরতিতে যাবে। ফিলিস্তিনের ইসলামী জেহাদ আন্দোলন জানিয়েছে, দখলদার ইসরাইল ফিলিস্তিনি জনগণের দাবি মেনে নিতে অস্বীকৃতি জানিয়ে আসছে। কিন্তু ফিলিস্তিনিরা তাদের দাবি মেনে নিতে ইসরাইলকে বাধ্য করবে।

একটি কমেন্ট করুন Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

two × two =

You may use these HTML tags and attributes: <a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <strike> <strong>